ইস্যুসমূহ

ভোক্তাসাধারনের দৃষ্টিকোন থেকে:

  1. ন্যুনতম মানের ইন্টারনেট সেবার জন্য চড়া মূল্য পরিশোধ করতে হচ্ছে, অথবা তা অনেকের সামর্থের বাইরেই থেকে যাচ্ছে।
  2. পে-পার-ইউজ বা ডিফল্ট প্যাকেজে মোবাইল ডাটা সার্ভিসের জন্য অস্বভাবিক উচ্চ হারে মূল্য আদায় করা হচ্ছে, যা প্রতি মেগাবাইট ১৫-২০ টাকা। উদাহরনস্বরূপ, মাত্র দুটি ওয়েবপেজ খুলতে ১০০ টাকা (৫ মেগাবাইট) যথেষ্ট নয়।
  3. গুটিকয়েক জনপ্রিয় সাইট ছাড়া পৃথিবীর অধিকাংশ বড়-বড় শহর বা দেশের সাথে নাজুক ইন্টারনেট সংযোগ।
  4. আইএসপিগুলোর ঘোষিত প্যাকেজ বা স্পীডের তুলনায় প্রকৃত স্পীড অধিকাংশ সময় কম থাকছে।
  5. শেয়ারড কানেকশনের নামে সামান্য ডেডিকেডেট ব্যান্ডউইথ অনেক বেশি ব্যবহারকারীর মাঝে ভাগ করে যাচ্ছেতাই মানের সেবা দেয়া হচ্ছে।
  6. ফেয়ার-ইউজ পলিসি, ডাটা লিমিট এবং মিথ্যা বা অসম্পূর্ণ প্রচার ইত্যাদির নামে গ্রাহকের প্রতিনিয়ত সাথে প্রতারণা করা হচ্ছে।
  7. ইন্টারনেটের মত সার্বক্ষনিক একটি মাধ্যমের উপর “ডেটা লিমিট” বসিয়ে একে ভোগ্যপন্যের (যেমন টুথপেস্ট, সাবান ইত্যাদি) পর্যায়ে নামিয়ে আনা হচ্ছে।
  8. বহিঃবিশ্বের সাথে যোগাযোগব্যবস্থা উন্নত করার বদলে ইউটিউব, ফেসবুক ইত্যদি গুটিকয়েক সাইটের স্থানীয় মিরর স্থাপনের মাধ্যমে নেট-নিরপেক্ষতা ক্ষতিগ্রস্থ ও হুমকির মুখে পড়ছে।
  9. পেপালের মত ক্ষুদ্র-ব্যবসায়ীবান্ধব সার্বজনীন জনপ্রিয় পেমেন্ট গেটওয়ের অনুপস্থিতি।

জাতীয় এবং আন্তর্জাতিক দৃষ্টিকোন থেকে

  1. একমাত্র সাবমেরিন ক্যাবল (সিমিউই-৪) ব্যান্ডউইথের কতৃত্ব একচেটিয়াভাবে বিএসসিসিএল এর হাতে রয়েছে।
  2. একচেটিয়া বাজারের দুর্নাম থেকে রক্ষা পেতে ভারত থাকে অতি নিম্নমানের ব্যান্ডউইথ আমদানি করা হচ্ছে।
  3. বহুদিন যাবত বিকল্প সাবমেরিন ক্যাবল স্থাপনের জন্য কথা-বার্তা চলতে থাকলেও প্রকৃত কাজ কিছু হচ্ছে না।
  4. কৃত্তিমভাবে বাজার মূল্য চড়িয়ে রেখে সিমিউই-৪ ক্যাবেলের সম্পূর্ণ/অধিকাংশ ব্যান্ডউইথ ব্যবহার না করে মজুদ করা হচ্ছে।
  5. সিমিউই-৪ ক্যাবেলের তথাকথিত অব্যবহৃত ব্যান্ডউইথ বাংলাদেশের বাজার মূল্যের তুলনায়‌ অনেক কম মূল্যে ভারতে কাছে রপ্তানি করার জন্য দেন-দরবার চলছে।
  6. দেশের ভিতরে আইএসপিগুলোর মধ্যে আন্তঃসংযোগ ব্যবস্থা প্রায় অনুপস্থিত বা অকার্যকর। উদাঃ ঢাকা থেকে চট্টগ্রাম এর যোগাযোগ হয় ভারত বা সিংগাপুর ঘুরে।
  7. একচেটিয়া লাইসেন্স প্রদান করে আন্তঃশহর ডাটা কানেক্টিভিটির দাম অত্যন্ত চড়ি‌য়ে রাখা হয়েছে।

(চলবে…)

Leave a Reply